• বুধবার   ১০ আগস্ট ২০২২ ||

  • শ্রাবণ ২৬ ১৪২৯

  • || ১১ মুহররম ১৪৪৪

সর্বশেষ:
জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষ্যে বঙ্গবন্ধু রচিত বই বিতরণ অনুষ্ঠান সম্পন্ন সাকিবকে নোটিশ পাঠাল বিসিবি সিলেটের শ্রেষ্ঠ এএসআই মোহাম্মদ অলিউল হাসান
৪২

আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরীর প্রশংসায় পররাষ্ট্রমন্ত্রী 

সিলেট সমাচার

প্রকাশিত: ৯ জুলাই ২০২২  

একজন আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী একসময় ছাত্র রাজনীতির সাথে জড়িত ছিলেন। শুধু জড়িতই নয়, তুখোড় ছাত্রনেতা হিসাবে আজো তিনি অনেকের হৃদয় জুড়ে আছেন। এরপর একসময় যুক্তরাজ্যে পাড়ি দেন। তবু রক্তে যার বঙ্গবন্ধুর আদর্শ তিনিতো আর রাজনীতি বিমুখ হতে পারেন না! বিশেষ করে তার মনেতো সবসময় ওসমানীনগরের মানুষের কল্যাণচিন্তা। তিনি যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হিসাবে এখনো কাজ করছেন এবং কাজ করছেন ওসামানীনগর ও বিশ্বনাথের মানুষের জন্য। তার প্রমাণ পেয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. একে আব্দুল মোমেন। আর তাই দেশে ফিরে আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরীর প্রশংসা রীতিমতো পঞ্চমুখ তিনি।

স্মরণকালের ভয়াবহ বন্যায় বিপর্যস্ত সিলেট অঞ্চল। কিন্তু এমন পরিস্থিতিতেই দেশের বাইরে যেতে হয় পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. একে আব্দুল মোমেনকে। এক পর্যায়ে তাকে যুক্তরাজ্যেও যেতে হয়েছিল। সেখানে ড. মোমেন প্রবাসী আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের সাথে আলাপ করেন বিভিন্ন সময়ে, বিভিন্ন প্রসঙ্গে। সেই সুবাদে তিনি জেনে এসেছেন যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরীর বিভিন্ন তৎপরতার কথা। বিশেষ করে বন্যার এই মহাদুর্যোগে সেখানে পেশাগত কাজকর্মের পাশাপাশি নিজের এলাকা ওসমানীনগর ও বিশ্বনাথের বানবাসীদের জন্য তার নিরলস পরিশ্রমের বিস্তারিত অবগত হয়ে বেশ সন্তুষ্ট বলেই মনে হচ্ছে পররাষ্টমন্ত্রীর কথাবার্তায়।

শুক্রবার তিনি আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরীকে দিয়ে আসা কথা রাখতে বিশ্বনাথ ও ওসমানীনগরের বানবাসীদের মধ্যে ত্রাণ বিতরণ করতে গিয়েছিলেন। এর মূল উদ্যোক্তাও ছিলেন আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী।

সন্ধ্যার দিকে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওসমানীনগরের ইলাশপুর গ্রামের বানবাসীদের মধ্যে ত্রাণ বিতরণ করেন। এর আগে তিনি প্রধান অতিথির বক্তব্যে আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরীর ব্যাপক প্রশংসা করেন। বলেন, আমি নিজে দেখে এসেছি- এই এলাকার সন্তান আনোয়ারুজ্জামান বন্যার্ত মানুষকে খাদ্য ও ত্রাণ সহায়তা দিতে দিনরাত কঠোর পরিশ্রম করছেন। তিনি প্রবাসীদের কাছে ছুটছেন। নিজের পকেট থেকে যেমন টাকাপয়সা দান করছেন, তেমনি প্রবাসীদের কাছেও হাত পাতছেন। মানুষজনও ব্যাপক সাড়া দিচ্ছেন। তারা তার হাতে টাকাপয়সা তুলে দিচ্ছেন। মানুষের জন্য ভালোবাসা না থাকলে কেউ বিদেশের মাটিতে নানা প্রতিকূলতার মধ্যে থেকে এসব কাজ করতে পারেন না। তিনি বলেন, আনোয়ারুজ্জামানের গ্রহণযোগ্যতা এত বেশি যে, তার আহবানে সাড়া দিয়ে প্রবাসীরা ইতিমধ্যে ১০ হাজার পাউন্ড বন্যার্তদের জন্য দান করেছেন। সেগুলো বিতরণের একটা অনুষ্ঠানে থাকবো বলে তাকে কথা দিয়ে এসেছিলাম, তবে আজ একটি নয়- দুটি অনুষ্ঠানেই আমি থাকতে পেরে বেশ ভালো লাগছে।

ওসমানীনগর উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি হারুন মিয়ার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ সভাটি পরিচালনা করেন সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক মোবাশ্বির আলী এবং ওসমানীনগর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মো. আনা মিয়া।

এসময় উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক ডা, রুকেয়া, সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সম্পাদকমন্ডলীর সদস্য মোবাশ্বীর আলী, এফতার হোসেন পিয়ার, বীর মুক্তিযোদ্ধা কবির উদ্দিন আহমদ, ডা. সাকির আহমদ সাহিন, সদস্য আবদাল মিয়া, জেলা যুবলীগের সভাপতি শামীম আহমদ ভিপি, যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক আলতাফুর রহমান সুহেল, সাদিপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সাহেদ আহমদ মুসা, উমরপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান কিবরিয়া মিয়াসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ।

এর আগে বিকেলে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বিশ্বনাথের অলংকারী ইউনিয়নের বেতসান্দি গ্রামেও আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরীর উদ্যোগে এবং হাজি চান্দ আলী ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে ত্রাণসামগ্রী বিতরণ করেন।

এই সভায়ও তিনি আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরীর ব্যাপক প্রশংসা করেন।

সিলেট সমাচার
সিলেট সমাচার