• শনিবার   ২৮ মে ২০২২ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১৪ ১৪২৯

  • || ২৫ শাওয়াল ১৪৪৩

সর্বশেষ:
তরমুজ ফ্রিজে রাখবেন না যে কারণে হবিগঞ্জ জেলার শ্রেষ্ঠ ইউএনও মাধবপুরের মঈনুল পদ্মাসেতু দাঁড়িয়ে যাওয়ায় বিএনপির হিংসা হচ্ছে বড়লেখায় হত্যা চেষ্টা মামলায় প্রধান শিক্ষক কারাগারে বালি উত্তোলন না করার দাবিতে তাহিরপুরে মানববন্ধন বিশ্বনাথে জেলা আ’লীগের পক্ষ থেকে ত্রাণ বিতরণ করলেন শফিক চৌধুরী
২৬

চলচ্চিত্রে কোনো বিভাজন চাই না: অঞ্জনা

সিলেট সমাচার

প্রকাশিত: ৯ মে ২০২২  

বাংলা চলচ্চিত্রের সোনালী দিনের জনপ্রিয় অভিনেত্রী অঞ্জনা। অভিনয়ের পাশাপাশি তার নাচ মুগ্ধ করেছে অসংখ্য ভক্তদের। প্রায় ৩৫০টি সিনেমায় অভিনয় করছেন তিনি। জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত এই অভিনেত্রী রাজনীতিতেও সক্রিয়। সমসাময়িক ব্যস্ততা নিয়ে কথা হয় অভিনেত্রীর সঙ্গে।

কেমন কাটছে ঈদ?

অঞ্জনা: ঈদ মোবারক। গত দুই বছর করোনার জন্য সারা পৃথিবী স্তব্ধ হয়েছিল। এখন পরিস্থিতি অনেকটা স্বাভাবিক। তারপরও আমাদের সাবধানে থাকা দরকার। 
 
এখনো কি ঈদে হলে গিয়ে সিনেমা দেখা হয়?

অঞ্জনা: আমি এখনো নিয়মিত হলে গিয়ে সিনেমা দেখি। সেন্সর বোর্ডের সদস্য হিসেবে অনেক সিনেমা দেখা হয়েছে। আমার একটা অনুরোধ তাদের কাছে আপনারা পয়সা খরচ করে টেলিফিল্ম বানাবেন না। আজকাল দর্শক অনেক সচেতন। তারা এখন বুঝতে পারে কোনটা নাটক আর কোনটা সিনেমা। তাদের চোখে ফাঁকি দেওয়া সহজ নয়।

একসময় ঈদে আপনার সিনেমা মুক্তি পেত। সে সময়ের বিশেষ কোনো স্মৃতি মনে পড়ে?  

অঞ্জনা: দুই ঈদে দুটি সিনেমা ‘ঈদ মোবারক’ আর ‘মাসুম’ মুক্তি পেয়েছিল। সে সময় সিনেমা মুক্তির আগে আমরা সবাই অ্যাডভান্স বুকিং কোনটা হতো তাকিয়ে থাকতাম। আমরা দেখতাম সাদার ওপরে লাল রঙে লেখা হাউসফুল বোর্ড। এখন সব আর দেখা যায় না। ওই সময় আমাদের জন্য খুবই উৎসবমুখর ছিল। খুব মিস করি সেই সময়।

এবার শিল্পী সমিতির নির্বাচনকে নিয়ে যে আলোচনা-সমালোচনা হচ্ছে এ নিয়ে আপনার বক্তব্য কী?

অঞ্জনা: নির্বাচন তো সুষ্ঠুভাবেই হয়েছিল, তারপর হঠাৎ করে কি হলো বুঝলাম না! আমি তো বেশ কয়েকবার নির্বাচিত হয়েছি। এবারের নির্বাচনটা কেমন জানি এলোমেলো হয়ে গেল। যাই হোক এখন একটা পদ নিয়ে আইনি লড়াই চলছে, আইন যে রায় দেবে মেনে নেব। আশাকরি খুব শিগগিরই একটা সমাধান আমরা পাবো।

অন্য প্যানেল থেকে এসে এই কমিটির সঙ্গে কাজ করতে কোনো সমস্যার মুখোমুখি হচ্ছেন কিনা?

অঞ্জনা: আমি যে প্যানেল থেকে এসেছি তাদের সাথে দীর্ঘদিন কাজ করেছি। তারা সবাই পরিচিত। হঠাৎ করে নতুন প্যানেলে আসা একটু পার্থক্য লাগবেই। তাদের সঙ্গে একটা মিটিং করেছি। সিদ্ধান্তের ব্যাপারে আমার মতামতের গুরুত্ব দিয়েছেন তারা। আমি সবার সঙ্গে মিলেমিশে কাজ করতে চাই। কোনো বিভাজন চাই না।

নতুন করে সিনেমা প্রযোজনা করবেন?

অঞ্জনা: সবাই আমাকে অনুরোধ করছেন আবারো সিনেমা বানানোর জন্য। আমি কেন এতদিন চুপচাপ আছি- অনেকের প্রশ্ন। আমার প্রযোজনা সংস্থা অঞ্জনা ফিল্মস ছিল; এখান থেকে অনেক সিনেমা বানিয়েছি। সামনে চিন্তাভাবনা করছি একটা অনুদানের সিনেমা বানানোর। স্ক্রিপ্ট নিয়ে কাজ করছি। একটা সামাজিক গল্পের সিনেমা বানাব।

সিলেট সমাচার
সিলেট সমাচার