• শুক্রবার   ০৩ ডিসেম্বর ২০২১ ||

  • অগ্রাহায়ণ ১৮ ১৪২৮

  • || ২৬ রবিউস সানি ১৪৪৩

সর্বশেষ:
তাহিরপুরে শ্রীপুর উত্তর ইউনিয়নে নৌকার একক প্রার্থী সিলেট ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থীদের হুশিয়ারি! নিখোঁজের দু’দিন পর রোমানার লাশ মিললো নদীতে শেষ ওভারের রুদ্ধশ্বাস লড়াইয়ে হোয়াইটওয়াশ বাংলাদেশ পরীক্ষার্থীদের হলে পৌঁছে দিচ্ছে সিলেট জেলা ছাত্রলীগ

গোয়াইনঘাটে বন্যা পরিস্থিতির অবনতি

সিলেট সমাচার

প্রকাশিত: ১ জুলাই ২০২১  

পাহাড়ি ঢল ও ভারি বর্ষণে গোয়াইনঘাট উপজেলার নতুন নতুন এলাকা প্লাবিত হয়েছে। গত কয়েক দিনের টানা বর্ষণ ও উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলে সিলেটের পর্যটন অঞ্চল গোয়াইনঘাট উপজেলার নিম্নাঞ্চলগুলো প্লাবিত হয়ে রাস্তাঘাট তলিয়ে গেছে।

গোয়াইনঘাট - সারীঘাট সড়কের বিভিন্ন অংশ পানির নিচে রয়েছে। এছাড়া গোয়াইনঘাট রাধানগর সড়কের বেশকিছু অংশ পানির নিচে রয়েছে। বিপৎসীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে গোয়াইনঘাটের ডাউকি, গোয়াইন ও জৈন্তাপুর উপজেলার সারী নদীর পানি। পাহাড়ি ঢলে পানি বৃদ্ধি পেয়ে সারী-গোয়াইনঘাট ও রাধানগর- সড়ক পানিতে তলিয়ে গিয়ে উপজেলা সদরের সঙ্গে যানবাহন চলাচল বন্ধ হয়ে পড়েছে। উপজেলা সদরের সঙ্গে যোগাযোগের গুরুত্বপূর্ণ এসব সড়ক সমূহের উপর দিয়ে কোথাও কোথাও দুই থেকে তিন ফুট উচ্চতায় পাহাড়ি ঢলের পানি প্রবাহিত হচ্ছে।   

বসতবাড়িতে পানি উঠায় পানিবন্দি হয়ে অনেকে গবাদি পশু নিয়ে বিপাকে রয়েছেন।বসত বাড়ির পাশাপাশি অনেক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানও পানি উঠে গেছে। বন্যার পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় অনেকের পুকুর ডুবে মাছ ভেসে যাওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, টানা কয়েকদিনের ভারী বর্ষণে ডাউকি এবং সারী নদী দিয়ে উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলের কারণে রবিবার থেকে গোয়াইনঘাটের নিম্নাঞ্চলগুলোতে বন্যার পানি বৃদ্ধি পেতে শুরু করে। বুধবার পর্যন্ত বন্যার পানি বৃদ্ধি পেয়ে উপজেলার পূর্ব জাফলং ইউনিয়নের জাফলং চা- বাগান, মমিনপুর, আসাম পাড়া, আসাম পাড়া হাওর, ছৈলাখেল অষ্টম খণ্ড (আংশিক এলাকা) নবম খণ্ড, সানকী ভাঙ্গা, নয়াগাঙের পার, বাউরবাগ হাওর, ভিত্রিখেল হাওর, আলীরগাঁও ইউনিয়নের নাইন্দার হাওর, তিতকুল্লির হাওর, বুধিগাঁও হাওর, রাজবাড়ি কান্দিসহ পশ্চিম জাফলং, রুস্তমপুর, ডৌবাড়ী, লেঙ্গুগুড়া, তোয়াকুল ও নন্দীরগাঁও ইউনিয়নের অধিকাংশ গ্রামের রাস্তা-ঘাট ও বাড়ি-ঘর প্লাবিত হয়ে পড়েছে।  

এ ব্যাপারে কথা হলে গোয়াইনঘাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) তাহমিলুর রহমান বলেন, ভারী বর্ষণ ও পাহাড়ি ঢলের কারণে উপজেলার নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে। ইতোমধ্যে ডাউকি, গোয়াইন এবং সারী নদীর পানি বিপৎসীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। তবে উপজেলার জাফলং চা-বাগানসহ কয়েকটি রাস্তা-ঘাটের উপর দিয়ে প্রবল স্রোত প্রবাহিত হওয়ায় কিছুটা ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। এছাড়া এখন পর্যন্ত বড় ধরনের আর কোনো ক্ষয়ক্ষতির খবর পাওয়া যায়নি। সবকটি ইউনিয়নের সাথে সার্বক্ষণিক যোগাযোগ রয়েছে। বন্যায় জনগণের দুর্ভোগ লাগবে উপজেলার নিম্নাঞ্চলের সবকটি প্রাথমিক বিদ্যালয়কে আশ্রয়কেন্দ্র হিসেবে প্রস্তুত রাখা হয়েছে।

তিনি বলেন, পাহাড়ি ঢলের কারণে সৃষ্ট বন্যায় গোয়াইনঘাটের নিম্নাঞ্চলের পানিবন্দি মানুষজনের জান-মাল ও গবাদিপশু রক্ষায় সরকারের তরফে সার্বক্ষণিক যোগাযোগ ও তদারকি করা হচ্ছে। পানিবন্দি পরিবারের জন্য জরুরি ত্রাণ সহায়তা চেয়ে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে বার্তা পাঠানো হয়েছে।

সিলেট সমাচার
সিলেট সমাচার