ব্রেকিং:
পুষ্টি উন্নয়নে সহযোগিতা জোরদারকরণ বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত দক্ষিণ সুরমা ও জকিগঞ্জ থেকে আটক ২, ইয়াবা উদ্ধার বাড়তে পারে তাপমাত্রা ওআইসিকে শক্তিশালী করতে চাই: ড. মোমেন দেশের তিন কোটি অবৈধ স্মার্টফোন বন্ধ হয়ে যাচ্ছে ২১ ফেব্রুয়ারি পদ্মায় বসছে ২৫তম স্প্যান

বৃহস্পতিবার   ২০ ফেব্রুয়ারি ২০২০   ফাল্গুন ৭ ১৪২৬   ২৫ জমাদিউস সানি ১৪৪১

সর্বশেষ:
চায়ের দেশ শ্রীমঙ্গল : বসন্ত ঢাকছে শীতের কুয়াশায় সংগ্রামপুর গ্রামে লালিগাঙের সেতু ঝুঁকিপূর্ণ কত আয় করল ‘লাভ আজ কাল’ সহকর্মীদের কারণেই বাড়ছে হৃদরোগ! এমসি কলেজ চলছে তিন দিনব্যাপী বইমেলা ঢাকায় বহুল আকাঙিক্ষত মেট্রোরেলের মোড়ক উন্মোচন শ্রীমঙ্গলের চা বাগান থেকে লজ্জাবতী বানর উদ্ধার
৬৭

বাংলাদেশের স্বার্থ শেখ হাসিনা বিক্রি করবে না: প্রধানমন্ত্রী

সিলেট সমাচার

প্রকাশিত: ৯ অক্টোবর ২০১৯  

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, আপনাদের বোঝা উচিত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাংলাদেশের স্বার্থ বিক্রি করে না। 

বুধবার বিকালে ভারত সফর নিয়ে গণভবনে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এ কথা বলেন। 

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যে আমরা আমাদের প্রাকৃতিক গ্যাস রপ্তানি করছি না। আমরা বোটলজাত এলপিজি গ্যাস বিক্রি করছি। 

এ সময় তিনি ফেনী নদীর পানি প্রসঙ্গে বলেন, কেউ যদি পানি চায়, আর আমরা যদি পানি না দেই তাহলে বিষয়টি কেমন দাঁড়ায়। 

প্রধানমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ বিপুল পরিমাণ প্রাকৃতিক গ্যাস আমদানি করে দেশের চাহিদা মিটিয়ে ভারতে রফতানি করছে। এক সময় হাতে গোনা দু-একটি কোম্পানি একচেটিয়া ব্যবসা করতো, বর্তমানে তা ওপেন করে দেয়ায় ২৬টি কোম্পানি প্রতিযোগিতামূলকভাবে ব্যবসা করছে। তাই ১০ থেকে ১২ কেজির সিলিন্ডার দেড় হাজার টাকায় বিক্রি করতো, সেখানে এখন ৯০০ টাকায় বিক্রি করছে।

এলপিজি গ্যাস বাংলাদেশের রফতানি আইটেমে নতুন যুক্ত হয়েছে বলে মন্তব্য করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

বিদেশ সফর থেকে ফিরে প্রতিবারই সংবাদ সম্মেলন করেন সরকারপ্রধান শেখ হাসিনা। প্রতিবারই সমসাময়িক রাজনীতির বিভিন্ন বিষয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তর দেন তিনি।

এর আগে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের ৭৪তম অধিবেশনে যোগ দিতে গত ২২ থেকে ২৯ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত নিউইয়র্ক সফর করেন প্রধানমন্ত্রী। সেখানে তিনি জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের বিভিন্ন কর্মসূচিতে অংশগ্রহণের পাশাপাশি বেশ কয়েক দেশের রাষ্ট্র ও সরকারপ্রধান এবং বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংস্থার প্রধানের সঙ্গে বৈঠক করেন।

অন্যদিকে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির আমন্ত্রণে দ্বিপাক্ষিক বৈঠক এবং বিশ্ব অর্থনৈতিক ফোরামের ‘ইন্ডিয়া ইকোনমিক সামিটে’ অংশ নিতে ৩ থেকে ৬ অক্টোবর নয়াদিল্লি সফর করেন। এ সময় দুই দেশের মধ্যে সাতটি চুক্তি ও সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয় এবং তিনটি যৌথ প্রকল্পের উদ্বোধন করা হয়।

সিলেট সমাচার
সিলেট সমাচার
সিলেট সমাচার
এই বিভাগের আরো খবর