সোমবার   ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০   ফাল্গুন ১১ ১৪২৬   ২৯ জমাদিউস সানি ১৪৪১

সর্বশেষ:
নারী চা শ্রমিকদের সৌন্দর্যের আড়ালের জীবন মুজিববর্ষে গ্রামীণ জনপদে ৫ হাজার ব্রিজ তৈরি করবে সরকার সকালে ৯৯ বলেই শেষ জিম্বাবুয়ে, থামতে হলো ২৬৫ রানে সিলেটে আতঙ্কিত অপরাধ সাম্রাজ্যবাদীরা! নদী দখলকারীদের পক্ষে আদালতের রায় অন্যায্য: সুলতানা কামাল মুজিব বর্ষে ২০০ টাকার নোট আসছে
৪৫

আফগানিস্তানের সঙ্গে খেলার উপকারিতা দেখছেন মুমিনুল

সিলেট সমাচার

প্রকাশিত: ২২ আগস্ট ২০১৯  

অস্ট্রেলিয়া, নিউজিল্যান্ড, ভারত, ওয়েস্ট ইন্ডিজ, শ্রীলঙ্কা—প্রতিটি দলই সরাসরি টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ খেলা শুরু করেছে। বাংলাদেশকে সেটি করতে হচ্ছে না। টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের আগে ঝালিয়ে নেওয়ার সুযোগ পাচ্ছে আফগানিস্তানের বিপক্ষে টেস্ট খেলে।

র‍্যাঙ্কিংয়ের নিচের দল আফগানিস্তানের সঙ্গে খেলে বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় উপকার, লম্বা বিরতিতে টেস্টে ফেরা আর দুর্দান্ত কিছু করে আত্মবিশ্বাসের পারদটা ওপরে নিয়ে যাওয়া। নভেম্বরে ভারতের মতো ভীষণ শক্তিশালী এক দলের সঙ্গে খেলার আগে আফগানিস্তানের বিপক্ষে টেস্ট কতটা কাজে দেবে সেটিই আজ অনুশীলন শেষে বলছিলেন মুমিনুল হক, ‘টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের আগে এই ম্যাচ আমাদের জন্য ভালো প্রস্তুতি হবে। আমাদের সবার জন্যই এটা ভালো সুযোগ। ভালো একটা টেস্টই হবে আশা করি। ভারতের বিপক্ষে ম্যাচের আগে ওদের (আফগানিস্তানের) স্পিন আক্রমণ সামলাতে হবে আমাদের। এটা ভালো প্রস্তুতি হবে। আমরা জানি যে উপমহাদেশে ওদের (আফগানদের) স্পিন আক্রমণ অনেক ভয়ংকর।’

৫ সেপ্টেম্বর শুরু আফগানিস্তানের বিপক্ষে চট্টগ্রাম টেস্টে জিতলে খুব বেশি উচ্ছ্বাস থাকবে না। তবে হারলে নিশ্চয়ই কথা হবে। এই টেস্ট দিয়ে শুরু হচ্ছে নতুন কোচ রাসেল ডমিঙ্গোর ‘অ্যাসাইনমেন্ট’। তিনিও জয় দিয়েই শুরু করতে চাইবেন।

রাসেল দলের সঙ্গে যোগ দিয়েছেন কাল। তাঁর সঙ্গে স্বল্প সময়ে খুব বেশি স্কিল নিয়ে কাজ না হলেও জানাশোনার সুযোগ নিশ্চয়ই হয়েছে। ক্রিকেটারদের কাছে কোচের প্রত্যাশা কী, সেটি অবশ্য বলতে পারলেন না মুমিনুল। তবে বাঁহাতি ব্যাটসম্যানের উপলব্ধি, ভালো করলে কোচ তাঁকে পরিকল্পনাতে রাখবেনই, ‘কোচ কী চাচ্ছে ওটা চিন্তা না করে নিজের কাজ ঠিকভাবে করলেই হয়। যেমন—যদি ফিটনেসের দিক দিয়ে বা ব্যাটিং-বোলিংয়ে ভালো করেন তাহলে পৃথিবীর যত ভালো কোচ হোক বা যত খারাপ কোচ হোক, আপনাকে বিবেচনায় রাখবেই।’

কোচের প্রত্যাশা না হয় বলা কঠিন। তবে কোচের কাছে কী প্রত্যাশা, সেটি নিশ্চয়ই বলা যায়। মুমিনুল বললেনও, ‘এভাবে চিন্তা-ভাবনা করিনি। সবার একজন ব্যক্তিগত কোচ থাকে। আমি তাঁর কাছ থেকে সবকিছু নেব, এমন না বিষয়টা। তিনি যে পরামর্শ দেবে, যেটা আমার দরকার সেটা নেব। যদি ভালো লাগে তাহলে ওভাবে নেব। সবকিছু মিলে হয়তো ভালোই হবে।’

সিলেট সমাচার
সিলেট সমাচার
সিলেট সমাচার