মঙ্গলবার   ১৯ নভেম্বর ২০১৯   অগ্রাহায়ণ ৪ ১৪২৬   ২১ রবিউল আউয়াল ১৪৪১

সর্বশেষ:
লিফট ছিঁড়ে পড়লেন আমীর খসরুসহ বিএনপি নেতারা টমেটো চাষে স্বাবলম্বী হচ্ছেন কমলগঞ্জে কৃষকরা! ২ ঘণ্টা লাইনে দাঁড়িয়ে পিঁয়াজ কিনলেন মেয়র আরিফ সিলেটে মহানগরীর ৩টি স্থানে বিক্রি হচ্ছে টিসিবির পেঁয়াজ
৩৪

অটোরিকশায় চড়ে ইমরানের সঙ্গে উইলিয়াম-কেটের সাক্ষাৎ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

প্রকাশিত: ১৬ অক্টোবর ২০১৯  

যুক্তরাজ্যের ডিউক অব কেমব্রিজ প্রিন্স উইলিয়াম ও তাঁর স্ত্রী ডাচেস অব কেমব্রিজ কেট মিডলটন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন। গতকাল মঙ্গলবার অটোরিকশায় চেপে পাকিস্তানের রাজধানী ইসলামাবাদের ব্রিটিশ হাইকমিশনার আয়োজিত এক বিশেষ সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে যোগ দেন তাঁরা।

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের খবরে জানানো হয়, পাঁচ দিনের সফরে এই রাজদম্পতি ইসলামাবাদের একটি স্কুল ও একটি জাতীয় উদ্যান পরিদর্শন করেছেন। সেখানে তাঁরা শিশুদের সঙ্গে আড্ডা দিয়েছিলেন। তাদের আঁকা ছবির প্রশংসা করেছেন।

জলবায়ু পরিবর্তন এবং শিক্ষায় সবার সমঅধিকারকে প্রাধান্য দিয়ে আয়োজিত হচ্ছে এই সফর। কর্মকর্তারা বলেন, নিরাপত্তাজনিত সমস্যার কারণে সফরটি জটিল হয়ে উঠেছে।

মঙ্গলবার বিকেলে কেট ও উইলিয়াম সরকারি বাসভবনে ইমরান খানের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন। উইলিয়ামের মা প্রিন্সেস ডায়ানা, সাবেক আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার ইমরান খানের বন্ধু ছিলেন। শৈশবে উইলিয়াম তাঁর সঙ্গে ক্রিকেটও খেলেছেন। পাকিস্তানে ডায়ানার জনপ্রিয়তা আকাশচুম্বী। ১৯৯০–এর দশকে তিনি বেশ কয়েকবার পাকিস্তান সফর করেন। এ সময় তিনি ইমরান খানকে ক্যানসার হাসপাতাল তৈরির জন্য অর্থ সংগ্রহ করতে সহায়তা করেছিলেন।

এর আগে উইলিয়াম ও কেট ইসলামাবাদ মডেল কলেজ ফর গার্লসে গিয়ে একদল প্রবীণ শিক্ষার্থীর সঙ্গে শিক্ষার বিষয়ে আলোচনা করেন। এ সময় তাঁরা শিশু শিক্ষার্থীদের শ্রেণিকক্ষেও যান। তাঁরা চলে যাওয়ার সময় একদল মেয়ে পাকিস্তানের জাতীয় গান পরিবেশন করে। তাদের বিদায় জানাতে লাইনে দাঁড়িয়ে থাকা শিক্ষার্থীদের শুভেচ্ছা জানান এই দম্পতি।

পরে তাঁরা ইসলামাবাদের অপর প্রান্তে মার্গাল্লাহ হিলস জাতীয় উদ্যান পরিদর্শন করেন। উদ্যানটি শিকার, দাবানল, আক্রমণাত্মক প্রজাতি এবং জঞ্জালের হুমকির মধ্যে রয়েছে।

২৩ বছর আগে পাকিস্তান সফরে এসেছিলেন কেটের শাশুড়ি প্রিন্সেস ডায়ানা। সে সময় তিনি যে ধরনের পোশাক পরেছিলেন, এবারের ভ্রমণে কেট মিডলটনকেও একই ধরনের পোশাকে দেখা যাচ্ছে। কেট সকালের অনুষ্ঠানের জন্য হালকা নীল রঙের আধুনিক ধাঁচের সিল্কের ‘চুড়িদার কামিজ’ পরেছেন। ছবিটি টুইটারে ছড়িয়ে দিয়েছেন অনেকে। ওই টুইটেই প্রিন্সেস ডায়ানার একই রঙের পোশাক পরা একটি ছবিও জুড়ে দেওয়া হয়েছে। ডায়ানার ওই ছবি ধারণ করা হয়েছিল ১৯৯৬ সালে পাকিস্তান সফরের সময়।
নকশাকার মাহিন খান এক টুইট বার্তায় বলেছেন, ডাচেসের জন্য এই পোশাকটি তৈরি করা নিঃসন্দেহে একটি সম্মানের বিষয়।

প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করার জন্য সাদা প্যান্টের ওপরে একটি উজ্জ্বল সবুজ রঙের টিউনিক পরেছিলেন কেট। এ ধরনের পোশাক ডায়ানারও পছন্দ ছিল। কেটের পোশাকের মধ্য দিয়ে যেন ডায়ানারই প্রতিফলন হয়েছে। শুধু পোশাকেই নয়, কেট মিডলটনের আঙুলে দেখা গেছে বাগদানের সময় পাওয়া হিরের আংটি। ওই আংটিও একসময় প্রিন্সেস ডায়ানা ব্যবহার করতেন।

বৈদেশিক নীতি বিশেষজ্ঞ ও কর্মকর্তারা বলেছেন, এক দশকেরও বেশি সময়ে ব্রিটিশ রাজপরিবারের সদস্যরা এই প্রথম পাকিস্তান সফরে এলেন। ব্রিটিশ পররাষ্ট্র দপ্তরের অনুরোধে আয়োজিত এই সফরটি উভয় পক্ষকে তাদের কূটনৈতিক লক্ষ্য আরও এগিয়ে নিতে সহায়তা করতে পারে।

ইউরোপীয় ইউনিয়ন থেকে বিদায় নেওয়ার সময়সীমা বেঁধে দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে যুক্তরাজ্য অন্যান্য দেশের সঙ্গে বৈদেশিক সম্পর্ক পুনরায় জোরদার করার চেষ্টা চালাচ্ছে। অন্যদিকে পাকিস্তান পর্যটনশিল্প ও বিনিয়োগ বাড়াতে তার বৈশ্বিক ভাবমূর্তি মেরামতের জন্য কাজ করছে।

সিলেট সমাচার
সিলেট সমাচার
এই বিভাগের আরো খবর